তাজা মাছ চিনবেন কিভাবে, বাজারে গিয়ে মিলিয়ে নিন এই ব্যাপারগুলো

কী ভাবে চিনবেন তাজা মাছ ? বাজারে গিয়ে মিলিয়ে নিন এই ব্যাপারগুলো ! রইল বাজার থেকে কেনা মাছ চিনে নেওয়ার অব্যর্থ কিছু নিয়মের কথা! মৎস্য ধরিব খাইব সুখে! মাছের যে কত রকমের সুস্বাদু পদ আছে গুনে শেষ করা যায়না। কিন্তু পাকা রাঁধুনিরা বলেন মাছ ভালো হলে ঝোল বা ঝালের স্বাদ এমনিতেই ভালো হয়। আর যাঁরা গুছিয়ে বাজার করতে ভালোবাসেন তাঁরা বলেন

যে দেখেশুনে মাছ কেনাটা একটা শিল্প। একশোভাগ খাঁটি কথা। বুঝেশুনে মাছ কিনতে না পারলে ঠকে যাওয়ার সমূহ আশঙ্কা থাকে।রইল বাজার থেকে কেনা মাছ চিনে নেওয়ার অব্যর্থ কিছু নিয়মের কথা!

১) গন্ধ বিচার নেকেই মাছের আঁশটে গন্ধ সহ্য করতে পারেন না। কিন্তু মাছ বাসি না তাজা সেটা বোঝার প্রথম উপায় হল এই গন্ধই। মাছ তাজা হলে তার গা থেকে একটা মেছো গন্ধ বেরোয়। যদি উগ্র ওষুধের গন্ধ বেরোয় তাহলে বুঝতে হবে মাছ বাসি বা এতে কোনও কড়া রাসায়নিক দেওয়া হয়েছে। ২) লক্ষ্য হোক মাছের চোখ অনেকটা অর্জুনের লক্ষ্যভেদ করার মতো ব্যাপার এটা। শুনতে অদ্ভুত লাগলেও এটাই সত্যি। তাজা মাছের তরতাজা ভাব সব চেয়ে বেশি প্রতিফলিত হয় মাছের চোখে।

তাজা মাছের চোখ হয় উজ্জ্বল আর লালচে। যদি দেখা যায় যে মাছের চোখ সাদা হয়ে গেছে এবং সেটা বিবর্ণ দেখাচ্ছে তাহলে বুঝতে হবে যে এই মাছ বাসি বা এতে পচন দেখা দিয়েছে।

৩) টিপে-টুপে দেখে নিতে হবে এটা যারা মাছ কেনায় অত দক্ষ নয় তাঁরাও জানেন- মাছের পেটে আঙুল দিয়ে টিপে দেখতে অনেককেই দেখা যায় বাজারে। মাছ তাজা হলে পেট থাকে শক্ত কিন্তু পচা হলেই হয় উল্টোটা। অর্থাৎ আঙুল পেটে ডুবে যায়। একটু ঘষেও দেখা যেতে পারে। তাজা মাছের আঁশ এমনিতে উঠে আসে না। কিন্তু বাসি মাছের আঁশ খুলে পড়ে যায়।

৪) পহলে দর্শনদারি অবশ্য তার পরে মাছের গুণ বিচার করবেন কিন্তু আগে মাছ দেখে ভালো লাগছে কিনা সেটা কিন্তু গুরুত্বপূর্ণ। মাছ চকচক করছে কি না, মাছের চোখ লাল কি না এবং কাটলে গলগল করে রক্ত বেরোচ্ছে কি না সেটা দেখে নেওয়া দরকার। মাছের কানকো তুলে দেখলেই রহস্য ফাঁস হয়ে যাবে। তাজা মাছের কানকো সব সময় লালচে গোলাপি হয়। তাছাড়া তাজা মাছের কানকো একটু হড়হড়ে হয়। ৫) কানকো দেখে নিতে হবে কী ভাবে চিনবেন তাজা মাছ ? বাজারে গিয়ে মিলিয়ে নিন এই ব্যাপারগুলো ! রইল বাজার থেকে কেনা মাছ চিনে নেওয়ার অব্যর্থ কিছু নিয়মের কথা!

মৎস্য ধরিব খাইব সুখে! মাছের যে কত রকমের সুস্বাদু পদ আছে গুনে শেষ করা যায়না। কিন্তু পাকা রাঁধুনিরা বলেন মাছ ভালো হলে ঝোল বা ঝালের স্বাদ এমনিতেই ভালো হয়। আর যাঁরা গুছিয়ে বাজার করতে ভালোবাসেন তাঁরা বলেন যে দেখেশুনে মাছ কেনাটা একটা শিল্প। একশোভাগ খাঁটি কথা। বুঝেশুনে মাছ কিনতে না পারলে ঠকে যাওয়ার সমূহ আশঙ্কা থাকে।রইল বাজার থেকে কেনা মাছ চিনে নেওয়ার অব্যর্থ কিছু নিয়মের কথা!

১) গন্ধ বিচার অনেকেই মাছের আঁশটে গন্ধ সহ্য করতে পারেন না। কিন্তু মাছ বাসি না তাজা সেটা বোঝার প্রথম উপায় হল এই গন্ধই। মাছ তাজা হলে তার গা থেকে একটা মেছো গন্ধ বেরোয়। যদি উগ্র ওষুধের গন্ধ বেরোয় তাহলে বুঝতে হবে মাছ বাসি বা এতে কোনও কড়া রাসায়নিক দেওয়া হয়েছে।

২) লক্ষ্য হোক মাছের চোখ অনেকটা অর্জুনের লক্ষ্যভেদ করার মতো ব্যাপার এটা। শুনতে অদ্ভুত লাগলেও এটাই সত্যি। তাজা মাছের তরতাজা ভাব সব চেয়ে বেশি প্রতিফলিত হয় মাছের চোখে। তাজা মাছের চোখ হয় উজ্জ্বল আর লালচে। যদি দেখা যায় যে মাছের চোখ সাদা হয়ে গেছে এবং সেটা বিবর্ণ দেখাচ্ছে তাহলে বুঝতে হবে যে এই মাছ বাসি বা এতে পচন দেখা দিয়েছে।

৩) টিপে-টুপে দেখে নিতে হবে এটা যারা মাছ কেনায় অত দক্ষ নয় তাঁরাও জানেন- মাছের পেটে আঙুল দিয়ে টিপে দেখতে অনেককেই দেখা যায় বাজারে। মাছ তাজা হলে পেট থাকে শক্ত কিন্তু পচা হলেই হয় উল্টোটা। অর্থাৎ আঙুল পেটে ডুবে যায়। একটু ঘষেও দেখা যেতে পারে। তাজা মাছের আঁশ এমনিতে উঠে আসে না। কিন্তু বাসি মাছের আঁশ খুলে পড়ে যায়।

৪) পহলে দর্শনদারি অবশ্য তার পরে মাছের গুণ বিচার করবেন কিন্তু আগে মাছ দেখে ভালো লাগছে কিনা সেটা কিন্তু গুরুত্বপূর্ণ। মাছ চকচক করছে কি না, মাছের চোখ লাল কি না এবং কাটলে গলগল করে রক্ত বেরোচ্ছে কি না সেটা দেখে নেওয়া দরকার। মাছের কানকো তুলে দেখলেই রহস্য ফাঁস হয়ে যাবে। তাজা মাছের কানকো সব সময় লালচে গোলাপি হয়। তাছাড়া তাজা মাছের কানকো একটু হড়হড়ে হয়। ৫) কানকো দেখে নিতে হবে।